হার্দিক-রাহুল বিতর্কে ক্ষমা চাইলেন করণ জোহর

‘কফি উইথ করণ’ অনুষ্ঠানে এসেছিলেন ভারতের জাতীয় দলের খেলোয়াড় হার্দিক পান্ডিয়া এবং কে এল রাহুল। শোয়ের উপস্থাপক পরিচালক করণ জোহরের করা এক প্রশ্নের জবাবে অশালীন মন্তব্যের জেরে হার্দিক-রাহুল বিতর্কে সরগরম ক্রিকেটমহল। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমেও ট্রলের শিকার হচ্ছেন তরুণ এই দুই ক্রিকেটার। শেষ পর্যন্ত ক্ষমা চাইলেন শোয়ের হোস্ট করণ নিজেই। দায় নিজের ঘাড়ে নিয়ে করণ বলেন, ‘এই ঘটনার জন্য আমার নিজেকে দায়ী বলে মনে হচ্ছে। আমার শো’তে ঘটনাটা ঘটেছে। আমি ক্ষমা চাইছি।’’

প্রশ্ন উঠতে শুরু করেছে করণ জোহরের ভূমিকা নিয়েও। নিজের টক শো’তে গেস্টদের ডেকে এই ধরনের প্রশ্ন তিনিই বা কেন করলেন? বলিউডের বেশ কিছু তারকা এই প্রশ্নও তুলছিলেন। সেই করণ জোহরই একটি সংবাদ মাধ্যমকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে বললেন, ‘‘আমার নিজেকে ভীষণ ভাবে দায়ী মনে হচ্ছে। কারণ আমার শো। আমার প্ল্যাটফর্ম। আমি ওদের অতিথি হিসেবে আমন্ত্রণ জানিয়েছিলাম। সেখানে ভুল-ত্রুটি যা-ই হোক, তার দায়ও আমার। রাতের পর রাত ঘুমোতে পারিনি, শুধু এটা ভেবে যে, ওদের এই অপরিসীম ক্ষতি আমি পূরণ করব কী করে? কিন্তু এখন আমার কথা কে শুনবে? জল বহু দূর গড়িয়ে গিয়েছে। এখন সব কিছুই আয়ত্তের বাইরে।’’

সেই সঙ্গে করণ এটাও বলেছেন, যে প্রশ্ন হার্দিক-রাহুলকে করেছেন, সেই প্রশ্ন তিনি নারী অতিথিদেরও করেন। ৪৬ বছর বয়সী পরিচালক বললেন, ‘‘এই প্রশ্নই আমি দীপিকা পাড়ুকোন এবং আলিয়া ভাটকেও করেছিলাম। কিন্তু তাদের উত্তরে তো আর আমার কোনও নিয়ন্ত্রণ থাকে না।’’ তবে তার এই টক শো যে নারীরাই নিয়ন্ত্রণ করেন সে বিষয়ও বলেছেন করণ। এমনকি তাদের কাছ থেকে যে কখনও কোনও অভিযোগ আসেনি সে কথাও বলেন করণ জোহর।

কিন্তু করণ যাই বলুক ওই প্রশ্নের উত্তর দিতে গিয়েই দুই ক্রিকেটারের উপর দিয়ে এক রকম ঝড় বয়ে গেছে। করণের কথায়, ‘ওদের সঙ্গে যা ঘটে গেল তার জন্য আমি সত্যিই অনুতপ্ত। এই প্রশ্নও উঠেছে, আমি নাকি টিআরপি-র জন্য এ সব করে থাকি। আমি টিআরপি নিয়ে এক্কেবারেই ভাবিত নই।’’

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *