আগামীকাল থেকে ধানমন্ডিতে চালু হচ্ছে ‘স্টার সিনেপ্লেক্স’

রাজধানীর অভিজাত সিনেমা হাব ‘স্টার সিনেপ্লেক্স’ এবার চালু হচ্ছে বসুন্ধরা সিটির বাইরেও। আগামীকাল শনিবার থেকে স্টার সিনেপ্লেক্স ধানমন্ডির সীমান্ত সম্ভার (প্রাক্তন রাইফেলস স্কয়ার)-এ চালু হচ্ছে। জমকালো আয়োজনের মধ্য দিয়ে এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন স্টার সিনেপ্লেক্সের চেয়ারম্যান মাহবুব রহমান রুহেল। আরও উপস্থিত থাকবেন মিডিয়া ব্যক্তিত্ব, শোবিজ জগতের তারকা, নির্মাতা, করপোরেট ব্যক্তিত্ব, সংবাদমাধ্যমকর্মীসহ অন্যান্য অতিথিবৃন্দ।

নতুন মাল্টিপ্লেক্সটির ভেতরের ছবিসীমান্ত সম্ভারের দশম তলায় নির্মিত এ সিনেপ্লেক্সে রয়েছে তিনটি হল। আন্তর্জাতিক মানসম্পন্ন নান্দনিক পরিবেশ, সর্বাধুনিক প্রযুক্তিসম্বলিত অ্যাটমস ডলবি সাউন্ড সিস্টেম, সিলভার স্ক্রিনসহ একটি পূর্ণাঙ্গ মাল্টিপ্লেক্সের সব ধরনের সুবিধা থাকছে এখানে। এসব জানালেন স্টার সিনেপ্লেক্সের মিডিয়া ম্যানেজার মেসবাহ উদ্দিন আহম্মেদ।

রাজধানীর ধানমন্ডি, জিগাতলাসহ এর আশপাশের এলাকার দর্শকদের সুবিধার কথা চিন্তা করে অনেক দিন থেকেই এখানে একটি সিনেপ্লেক্স নির্মাণের পরিকল্পনা চলছিল বলে জানায় স্টার সিনেপ্লেক্স কর্তৃপক্ষ। এবার সেই পরিকল্পনা বাস্তবায়ন হতে যাচ্ছে। এর মধ্য দিয়ে নতুন মাইলফলক রচনা করছে স্টার সিনেপ্লেক্স। দেশের কোনও সিনেপ্লেক্সের এটিই হতে যাচ্ছে আলাদা শাখা। যা দেশের সিনেমা ইন্ডাস্ট্রির জন্য একটি ইতিবাচক সংযোজন। যখন দেশের বিভিন্ন স্থানে অনেক সিনেমা হল বন্ধ হয়ে যাচ্ছে তখন এ ধরনের নতুন নতুন মাল্টিপ্লেক্স চালু করার উদ্যোগ নিঃসন্দেহে বড় সুসংবাদ।

এ প্রসঙ্গে স্টার সিনেপ্লেক্সের চেয়ারম্যান মাহবুব রহমান রুহেল বলেন, ‘অত্যন্ত আনন্দের সঙ্গে জানাচ্ছি যে, দ্বিতীয় স্টার সিনেপ্লেক্সের যাত্রা শুরু হচ্ছে। যা আমাদের পথচলায় নতুন মাত্রা যোগ করছে। দর্শকদের ভালোবাসাই আমাদের এ যাত্রায় অনুপ্রেরণা জুগিয়েছে। আমরা শুরু থেকেই দর্শকদের সিনেমা দেখার নতুন পরিবেশ উপহার দিতে চেয়েছি। তারই ধারাবাহিকতায় এগিয়ে চলছে আমাদের এই প্রয়াস। দর্শকদের ভালোবাসাকে সঙ্গী করে আমরা আরও অনেক দূর যেতে চাই।’

উল্লেখ্য, দেশের সিনেমাপ্রেমী দর্শকদের বিশ্বমানের প্রেক্ষাগৃহ উপহার দেওয়ার লক্ষ্যে ২০০৪ সালের ৮ অক্টোবর রাজধানীর বসুন্ধরা সিটি শপিংমলে যাত্রা শুরু করে ‘স্টার সিনেপ্লেক্স’। হলিউডের নতুন নতুন সব ছবির পাশাপাশি সুস্থধারার দেশীয় ছবিও নিয়মিতভাবে প্রদর্শিত হচ্ছে এখানে। নান্দনিক পরিবেশ, সর্বাধুনিক প্রযুক্তিসম্বলিত সাউন্ড সিস্টেমসহ নানা অভিনবত্বের মধ্য দিয়ে সিনেমাপ্রেমীদের প্রিয় নাম হয়ে উঠেছে ‘স্টার সিনেপ্লেক্স’।

২০১৯ সালের মধ্যে ঢাকার উত্তরা, পূর্বাচলসহ বিভিন্ন স্থানে আরও ২০টি হল নির্মাণ এবং পর্যায়ক্রমে দেশব্যাপী ১০০টি হল নির্মাণের পরিকল্পনা রয়েছে বলে জানান প্রতিষ্ঠানটির প্রধান কর্তা মাহবুব রহমান রুহেল।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *